রবিবার, ফেব্রুয়ারি ২৪

পান্ডার খাঁচায় পড়ে গেল খুদে, ধীর পায়ে এগিয়ে আসছে তিনটি পান্ডা! তার পর… দেখুন ভিডিও

দ্য ওয়াল ব্যুরো: বাঘ-সিংহের খাঁচায় ভুল করে ঢুকে পড়ে প্রাণ হারিয়েছেন অনেকেই। কিন্তু আপাত ভাবে দেখতে মিষ্টি, নিরীহ পান্ডার খাঁচায় যদি কেউ ঢুকে পড়ে? তা হলেও কি একই বিপদ হতে পারে?

এই পান্ডার খাঁচাতেই ভুল করে ঢুকে পড়েছিল একটি বাচ্চা। আর সোশ্যাল মিডিয়ায় সেই ঘটনার ভিডিও দেখেই চমকে গিয়েছেন নেটিজেনরা। শনিবার চিনের একটি চিড়িয়াখানায় পান্ডার আস্তানায় পড়ে যায় একটি আট বছরের বাচ্চা মেয়ে। তখনই সেই ছোট্ট মেয়েটিকে ঘিরে ধরে তিন-তিনটি পান্ডা।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, পান্ডারা দেখতে যতটা মিষ্টি, যতটা নম্র, আদতে ঠিক ততটা তারা নয়। এমনকী পান্ডার দেখভাল করেন যাঁরা, তাঁরাও পান্ডাদের থেকে নিরাপদ দূরত্ব বজায় রাখেন। পান্ডাদের বয়স দু’বছর হয়ে গেলেই তাদের থেকে দূরে থাকাই উচিত বলে জানিয়েছেন তাঁরা।

সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়া ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে, বাচ্চা মেয়েটি পান্ডার খাঁচার মধ্যে পড়ে গিয়ে ভয়ে সিঁটিয়ে রয়েছে। দু’টি পান্ডা তার দিকে তাকিয়ে আস্তে আস্তে এগোচ্ছে। এক জন নিরাপত্তা রক্ষী একটি লাঠির সাহায্যে মেয়েটিকে পশুর আস্তানা থেকে টেনে তোলার চেষ্টা করছেন। কিন্তু বারেবারেই ব্যর্থ হচ্ছে সেই পদ্ধতি।

শয়ে শয়ে দর্শক দাঁড়িয়ে এই ঘটনাটি দেখছেন। তার পরেই বাচ্চা মেয়েটির দিকে আস্তে আস্তে এগিয়ে যেতে দেখা যায় তৃতীয় একটি পান্ডাকে। তখনই ওই নিরাপত্তাকর্মী লাঠি ছেড়ে নিজে খানিক নেমে পড়েন গর্তে, হাত ধরে বাচ্চাটিকে  টেনে তোলেন উপরে।

দেখুন সেই ভিডিও।

ভিডিওটি ভাইরাল হয়ে যাওয়ার পর থেকেই ওই নিরাপত্তাকর্মী লিউ গুইহুয়ার প্রশংসা করেছেন সকলেই। তিনিই নিজের ঝুঁকি নিয়ে বাচ্চাটিকে উদ্ধার করে তাকে তার বাবা-মায়ের কাছে সুস্থ অবস্থায় ফিরিয়ে দেন। বাচ্চাটির শারীরিক অবস্থা পরীক্ষার জন্য তাকে হাসপাতালেও নিয়ে যান তাঁর অভিভাবকেরা।

Shares

Comments are closed.