ফের বাড়ছে করোনা সংক্রমণ, পশ্চিমবঙ্গ সহ ১০ রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে টিম পাঠাল মোদী সরকার

দ্য ওয়াল ব্যুরো : কোভিড পজিটিভের সংখ্যা কমাতে গেলে কী করতে হবে, তা নিয়ে সাতটি রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের সরকারকে চিঠি দিলেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যসচিব। এর পাশাপাশি ১০ টি রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে উচ্চ পর্যায়ের টিম পাঠিয়েছে মোদী সরকার। তার মধ্যে আছে মহারাষ্ট্র, কেরল, ছত্তিসগড়, মধ্যপ্রদেশ, গুজরাত, পাঞ্জাব, কর্নাটক, তামিলনাড়ু, পশ্চিমবঙ্গ এবং কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল জম্মু ও কাশ্মীর।

কেন্দ্রীয় টিমগুলির নেতৃত্বে আছেন জয়েন্ট সেক্রেটারি স্তরের অফিসাররা। ওই টিমগুলি খতিয়ে দেখবে কেন সংক্রমণ বাড়ছে। সংক্রমণের শৃঙ্খল ভাঙার জন্য তারা সংশ্লিষ্ট রাজ্য সরকার বা কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের স্বাস্থ্য দফতরের সঙ্গে যৌথভাবে কাজ করবে।

বর্তমানে দেশে যত অ্যাকটিভ করোনা রোগী আছেন, তাঁদের ৭৫ শতাংশ মহারাষ্ট্র ও কেরলের বাসিন্দা। মঙ্গলবার মহারাষ্ট্রে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৫২১০ জন। কেরলে আক্রান্ত হয়েছেন ২২১২ জন। তামিলনাড়ুতে আক্রান্তের সংখ্যা ৪৪৯। মহারাষ্ট্রে ১৮ জন করোনায় মারা গিয়েছেন। কেরলে মারা গিয়েছেন ১৬ জন। পাঞ্জাবে মৃতের সংখ্যা ১৫।

দেশে মোট পাঁচটি রাজ্যে করোনা রোগীর সংখ্যাবৃদ্ধি চিন্তায় ফেলেছে বিশেষজ্ঞদের। দিল্লি সরকার স্থির করেছে ঐ রাজ্যগুলি থেকে কেউ রাজধানীতে আসতে চাইলে আগে কোভিড নেগেটিভ সার্টিফিকেট দিতে হবে। ইতিমধ্যে কর্নাটক, তামিলনাড়ু এবং উত্তরাখণ্ডের সরকার ওই পাঁচ রাজ্য থেকে আসা মানুষজনের কাছে কোভিড নেগেটিভ সার্টিফিকেট চাইছে।

মহারাষ্ট্রে সংক্রমণ বাড়ছে মূলত মুম্বইয়ের শহরতলি এলাকায়। তার মধ্যে আছে নাগপুর, অমরাবতী, নাসিক, অকোলা এবং যবতমাল। মহারাষ্ট্র সরকার রাজ্য জুড়ে সামাজিক, রাজনৈতিক ও ধর্মীয় সমাবেশের ওপরে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে। পুনে এবং অমরাবতীতে নতুন করে জারি হয়েছে লকডাউন।

পাঁচ রাজ্যে করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধি পাওয়ায় অনেকে আশঙ্কা করছেন, অতিমহামারীর দ্বিতীয় ওয়েভ আসতে চলেছে। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রক রাজ্যগুলিকে নির্দেশ দিয়েছে, টেস্ট আরও বাড়াতে হবে। আরও বেশি মানুষকে দ্রুত ভ্যাকসিন দিতে হবে।

বুধবার সকালে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রকের বুলেটিনে বলা হয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ১৩ হাজার ৭৪২ জন আক্রান্ত হয়েছেন। এর ফলে ২৪ ফেব্রুয়ারি, বুধবার, সকাল ৮টা পর্যন্ত ভারতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ১ কোটি ১০ লাখ ৩০ হাজার ১৭৬ জন।

বুলেটিন জানাচ্ছে, গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে করোনা আক্রান্ত হয়ে ১০৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। অর্থাৎ দেশে করোনায় মৃতের সংখ্যা ১ লাখ ৫৬ হাজার ৫৬৭ জন। ভারতে করোনায় মৃত্যুহার ১.৪২ শতাংশ।

You might also like
Comments
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More