নিজের শরীরে সংক্রমণের চিহ্ন নেই অথচ তাঁর থেকেই করোনাভাইরাসে আক্রান্ত পাঁচ আত্মীয়

দ্য ওয়াল ব্যুরো : যার নিজের শরীরে করোনাভাইরাসের লক্ষণ নেই, তার থেকেও কি অন্যের দেহে ছড়াতে পারে ওই ভাইরাস? চিনের চিকিৎসকরা এমনই এক অদ্ভূত ঘটনার কথা জানিয়েছেন শুক্রবার। চিনের উহান প্রদেশ থেকে বিশ্ব জুড়ে ছড়িয়ে পড়েছে করোনাভাইরাস। সেখানকার বাসিন্দা এক ২০ বছরের মহিলা ৬৭৫ কিলোমিটার দূরে অন্যাঙ্গ নামে এক জায়গায় গিয়েছিলেন। সেখানে তাঁর আত্মীয়ের বাড়ি আছে। ওই মহিলার থেকে পাঁচজন আত্মীয় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন।

এই ঘটনার কথা আমেরিকান মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশনের জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে। ভ্যানডারবিল্ট ইউনিভার্সিটি মেডিক্যাল সেন্টারের চিকিৎসক উইলিয়াম শাফনার বলেন, “বিজ্ঞানীরা একটা প্রশ্নের উত্তর খুঁজছেন। কারও দেহে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ হওয়া সত্ত্বেও কি তিনি অসুস্থ না হতে পারেন? কীভাবে ওই ভাইরাস ছড়াচ্ছে, তা বোঝার জন্য এই প্রশ্নের উত্তর পাওয়া জরুরি।”

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (হু) করোনাভাইরাসের নাম দিয়েছে ‘কোভিড-১৯’। চিনে মোট ৭৫ হাজার ৫৬৭ জন ওই রোগে আক্রান্ত হয়েছেন। মারা গিয়েছেন ২২৩৯ জন। চিনের মূল ভূখণ্ডের বাইরে ২৬ টি দেশে ছড়িয়েছে ওই ভাইরাস। উইলিয়াম শাফনার বলেছেন, প্রায়ই দেখা যাচ্ছে, এমন অনেকের দেহ থেকে ওই ভাইরাস ছড়াচ্ছে যাঁদের নিজেদের শরীরে সংক্রমণের কোনও লক্ষণ নেই।

চিনের পিপলস হসপিটাল অব ঝেংঝৌ ইউনিভার্সিটির চিকিৎসক মেইয়ুন ওয়াং বলেন, গত ১০ জানুয়ারি উহানের ওই মহিলা অন্যাঙ্গ অঞ্চলে আত্মীয়ের বাড়িতে গিয়েছিলেন। সেখানে কয়েকজন আত্মীয় অসুস্থ হয়ে পড়েন। চিকিৎসকেরা সেই মহিলাকে আলাদা করে রাখেন। তাঁকে পরীক্ষা করে প্রথমে করোনাভাইরাসের চিহ্ন পাওয়া যায়নি। কিন্তু দ্বিতীয়বার পরীক্ষা করে ওই রোগের লক্ষণ দেখতে পাওয়া যায়।

বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, এখন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের নিয়ে যতটা না বেশি ভয়, তার চেয়ে বেশি ভয় সুস্থদের নিয়ে। কারণ যে কোনও দিন যে কোনও সময়ে আক্রান্ত হয়ে যাবেন তাঁরা। আর এই সংক্রমণ এতই দ্রুত ও সুক্ষভাবে ছড়িয়ে পড়ছে যে, একে আটকানোই সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ।

You might also like
Comments
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More