দিলীপ ঘোষকে নোটিস কমিশনের, কাল সকালের মধ্যে ব্যাখ্যা তলব

দ্য ওয়াল ব্যুরো: শীতলকুচির ঘটনা নিয়ে বিস্ফোরক মন্তব্য করেছিলেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। তা নিয়ে কমিশনে অভিযোগ জানিয়েছিল তৃণমূল। তার ভিত্তিতেই মঙ্গলবার বিজেপি রাজ্য সভাপতিকে নোটিস পাঠাল নির্বাচন কমিশন। বরাহনগরে দিলীপ ঘোষ যা বলেছিলেন তার ব্যাখ্যা চেয়েছে নির্বাচন সদন। বলা হয়েছে, বুধবার সকাল ১০টার মধ্যে দিলীপ ঘোষকে এই নোটিসের জবাব দিতে হবে। নইলে পদক্ষেপ করবে নির্বাচন কমিশন।

রবিবার বরানগরের সভা থেকে বিস্ফোরক মন্তব্য করেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। হুঁশিয়ারির সঙ্গে দিলীপবাবু বলেন, “শীতলকুচি কী দেখেছেন! এরপর বেশি বাড়াবাড়ি করলে জায়গায় জায়গায় শীতলকুচি হবে।” মেদিনীপুরের সাংসদ আরও বলেন, “এত দুষ্টু ছেলে কোথা থেকে এল? বাংলায় আর দুষ্টু ছেলে থাকবে না। যারা ভেবেছিল কেন্দ্রীয়বাহিনী বোধহয় বন্দুকটা শুধু দেখানোর জন্যই আনে, তারা বুঝে গেছে ওর ভিতরে থাকা গুলির কী জোর! কেউ যদি আইন হাতে নিতে আসে তাহলে ওই অবস্থাই হবে!”

এদিন দিলীপ ঘোষকে নোটিস পাঠানোর আগে প্রাক্তন বিজেপি রাজ্য সভাপতি রাহুল সিনহার বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ নেয় কমিশন। শীতলকু নিয়ে রাহুল বলেন, “ওখানে চার জনের বদলে আট জনকে গুলি করে মারা উচিত ছিল। কেন চার জনকে মারল, কেন আটজনকে মারেনি এই জন্য কেন্দ্রীয় বাহিনীকে শো-কজ করা উচিত।” তিনি আরও বলেন, “বিজেপিকে ভোট দিচ্ছে বলে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দলের ১৮ বছরের ছেলেরা বুথের লাইনে গুলি চালাচ্ছে। মমতা এদের নেত্রী হয়ে বসে আছেন। কেন্দ্রীয় বাহিনী যোগ্য জবাব দিয়েছে।”

এই মন্তব্যের প্রেক্ষিতে রাহুল সিনহাকে কমিশন সাফ জানিয়ে দিয়েছে, আগামী ৪৮ ঘণ্টা তিনি কোনও প্রচার করতে পারবেন না। দিতে পারবেন না কোনও বিবৃতিও। উল্লেখ্য, গতকালই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্রচারে ২৪ ঘণ্টা নিষেধাজ্ঞা যারই করেছিল কমিশন। তার প্রতিবাদে আজ, মঙ্গলবার দিদি ধর্নায় বসেছেন।

You might also like
Comments
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More