পেটে নেই এক দানা খাবার! ফের হাতি মৃত্যু তামিলনাড়ুতে

দ্য ওয়াল ব্যুরো: ফের হাতি মৃত্যুর ঘটনা দক্ষিণ ভারতে। তামিলনাড়ুর নীলগিরি অঞ্চলে এক পুরুষ হাতির মৃতদেহ পাওয়া গেছে। প্রাথমিক ভাবে অনুমান করা হচ্ছে, না খেতে পেয়েই মারা গিয়েছে হাতিটি।

জানা গেছে, নীলগিরির থেপ্পাক্কাদু এলাকায় মুদুমালাই টাইগার রিজার্ভের জঙ্গলে মৃত্যু হয়েছে ওই পুরুষ হাতির। তাঁর দেহের ময়না তদন্তের রিপোর্ট বলছে, হাতিটির দাঁত ও জিভে ঘা হয়েছিল। তাছাড়া তাঁর পেটে ও পাকস্থলীতে কোথাও এক কণা খাবারও পাওয়া যায়নি। বরং তাঁর পেটে বাসা বেঁধেছিল শূককীট। বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, খাদ্যের অভাবে এবং শরীরের বিভিন্ন অংশে ঘা হয়ে যাওয়ার ফলেই মৃত্যু হয়েছে ১৫ বছর বয়সী ওই পুরুষ হাতির।

বস্তুত, তামিলনাড়ু রাজ্য জুড়ে হাতি মৃত্যুর ঘটনা নতুন নয়। বরং রহস্যময় ভাবে হাতিদের মৃত্যু এই দক্ষিণি রাজ্যে উত্তরোত্তর বেড়েই চলেছে। বন দফতরের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, ২০২০ সালেই তামিলনাড়ুর বন জঙ্গলে মারা গিয়েছে প্রায় ৬৪টি হাতি। আর এর মধ্যে শুধুমাত্র কোয়েম্বাটুর জঙ্গলেই মৃত্যু হয়েছে ১৭টি হাতির।

পরিবেশরক্ষা বিষয়ক এক আন্তর্জাতিক ওয়েবসাইট মঙ্গাবে-র তরফ থেকে জানানো হয়েছে, “তামিলনাড়ুতে হাতিদের অস্বাভাবিক মৃত্যুর কারণ জানা যাচ্ছে না। এ ব্যাপারে রাজ্যের বন দফতর একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছে। সেখানকার হাতিদের রক্ষা, তাদের অস্বাভাবিক মৃত্যুর সংখ্যা কমানো এবং সর্বোপরি হাতির প্রতি মানুষের শত্রুতা মেটানো এই কমিটির অন্যতম লক্ষ্য।”

২০১৭ সালের হাতিগণনার রিপোর্টে দেখা গিয়েছিল গোটা দেশে হাতির সংখ্যা মোট ২৭ হাজার ৩১২টি। সেখানে তামিলনাড়ুতে ছিল মাত্র ২ হাজার ৭৬১টি হাতি। এরপর ২০১৮ ও ২০১৯ সালে যথাক্রমে ৮৪ এবং ১০৮টি হাতি মৃত্যুর খবর সামনে এসেছে এই রাজ্য থেকে।

You might also like
Comments
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More