আমেরিকায় ফের বন্দুকবাজের হামলা, হতাহত বহু

দ্য ওয়াল ব্যুরো : আমেরিকার ইন্ডিয়ানাপোলিস শহরে বৃহস্পতিবার হানা দেয় বন্দুকবাজ। এলোপাতাড়ি গুলিতে হতাহত হন অনেকে। পুলিশের মুখপাত্র জিন কুক জানিয়েছেন, শহরের আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরের কাছে হানা দেয় সেই দুষ্কৃতী। পরে সে আত্মঘাতী হয়।

পুলিশ জানায়, গুলিতে অনেকে হতাহত হয়েছেন। যদিও ঠিক কতজনের আঘাত লেগেছে নির্দিষ্ট করে বলা হয়নি।

গত কয়েক সপ্তাহে আমেরিকায় বেশ কয়েকবার বন্দুকবাজের হামলা হয়েছে। গত মাসের শেষে ক্যালিফোর্নিয়ার দক্ষিণে বন্দুকবাজের হামলায় চারজনের মৃত্যু হয়। মৃতদের মধ্যে ছিল একটি শিশু। ২২ মার্চ কলোরাডো প্রদেশে এক মুদির দোকানে হানা দেয় বন্দুকবাজ। নিহত হন ১০ জন। তার এক সপ্তাহ আগে জর্জিয়ায় বন্দুকবাজের গুলিতে নিহত হন আটজন। তাঁদের মধ্যে ছিলেন এশীয় বংশোদ্ভূত ছয় মহিলা।

গত বছর নভেম্বর মাসে আমেরিকার উইসকনসিন প্রদেশের এক সাব-আর্বান এলাকা মিলওয়াকির ওয়াওয়াটোসাতে একটি শপিং মলে বন্দুকবাজ হানা দেয়। বেশ কয়েক রাউন্ড গুলি চালায় সে। তারপরে সেখান থেকে পালিয়ে যায়।

ওয়াওয়াটোসার পুলিশ প্রধান ব্যারি ওয়েবার একটি বিবৃতিতে জানান, জরুরি পরিষেবা অর্থাৎ পুলিশ ও অ্যাম্বুল্যান্স সেখানে আসার আগেই মল থেকে পালিয়ে যায় বন্দুকবাজ। এই ঘটনায় সাতজন প্রাপ্তবয়স্ক ও এক কিশোর আহত হয়। তাদের হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। অবশ্য তাদের চোটের বিষয়ে কিছু জানাননি ওয়েবার।

মলের সিসিটিভি দেখে বন্দুকবাজের পরিচয় জানার চেষ্টা করে পুলিশ। জানা যায়, সে একজন শ্বেতাঙ্গ। ৩০-এর নীচেই তার বয়স হবে বলে মনে করা হচ্ছে।

ওয়াওয়াটোসার মেয়র ডেনিস ম্যাকব্রাইড জানিয়েছেন, এই শহরে ৪৭ হাজার মানুষের বাস। ওই মলে প্রতিদিনই অনেক বাসিন্দা যান। এই হামলার ফলে বড় ক্ষতি হতে পারত। কিন্তু কারও চোটই খুব বেশি গুরুতর নয় বলে জানিয়েছেন তিনি। ঘটনাস্থলে সঙ্গে সঙ্গেই ৭৫ জন পুলিশকর্মী পৌঁছে যান বলে জানিয়েছেন তিনি।

মলে আসা স্থানীয়রা জানিয়েছেন, ওই বন্দুকবাজ হামলা চালানোর পরেই মলের প্রধান দরজা বন্ধ করে দেওয়া হয়। ফলে বাইরের দিকের একটি ডিপার্টমেন্টাল স্টোরের বাইরে হামলা চালিয়েই পালিয়ে যেতে হয় বন্দুকবাজকে। এক মহিলা জানিয়েছেন তিনি প্রায় ১৫টি গুলির শব্দ শুনেছেন।

আমেরিকায় প্রতি বছর গুলিতে প্রায় ৪০ হাজার মানুষ মারা যান। তাঁদের অর্ধেকই আত্মঘাতী হন। রাজনীতিকদের একাংশ দীর্ঘদিন ধরে দাবি তুলেছেন, আগ্নেয়াস্ত্রের ব্যবহার কমাতে আইন করা হোক। মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন চলতি মাসে জানিয়েছেন, বন্দুকবাজদের মোকাবিলায় তিনি ছ’টি পদক্ষেপ নিচ্ছেন।

You might also like
Comments
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More