লন্ডন থেকে সোজা মুম্বইয়ের আর্থার রোড জেল, নীরব মোদীর জন্য তৈরি হচ্ছে ১২ নম্বর ব্যারাক

দ্য ওয়াল ব্যুরো: শেষমেশ ভারতেই ফেরানো হবে নীরব মোদীকে। মুম্বইয়ের আর্থার রোড জেলই হবে তাঁর নয়া ঠিকানা। সাজিয়ে গুছিয়ে তৈরি রাখা হচ্ছে জেলের ১২ নম্বর ব্যারাক। প্রস্তুতি শুরু হয়ে গেছে জোরকদমে।

লন্ডনের ওয়েস্টমিনস্টার আদালতে প্রত্যর্পণ মামলার শুনানি চলছে। যতদূর জানা যাচ্ছে, ঋণ খেলাপি মামলায় অভিযুক্ত হীরে ব্যবসায়ীকে ভারতের হাতেই তুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হতে পারে। এদিকে ভারতের জেলে ঠিক কেমন আতিথেয়তা পাবেন সে ভেবে আশঙ্কায় ভুগছেন নীরব মোদী। বার বার জামিনের আবেদন করেছেন। তা খারিজ হয়ে গেছে। ভারতের অপরিচ্ছন্ন জেলে থাকতে পারবেন না বলে অনুনয় বিনয় করেও লাভ হয়নি। এমনকি আত্মহত্যার হুমকিতেও চিরে ভেজেনি।

নীরব মোদীর বিরুদ্ধে অভিযোগ, তিনি পাঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্কের ১৩ হাজার ৫০০ কোটি টাকা চুরি করেছেন। একাজে তাঁর সঙ্গী ছিলেন মেহুল চোকসি। তিনি নীরবের কাকা। সিবিআই ও ইডি-র তদন্তে জানা যায়, নীরব মোদী চুরি করা অর্থের এক বিরাট অংশ পরিবারের কয়েকজনের অ্যাকাউন্টে রেখেছেন। ২০১৯ সালে ৪৯ বছর বয়সী নীরব মোদী গত বছর ব্রিটেনে গ্রেফতার হন। তিনি এখন দক্ষিণ-পশ্চিম লন্ডনের ওয়ান্ডসওয়ার্থ জেলে আছেন। এর আগে ওয়েস্টমিনস্টার ম্যাজিস্ট্রেটস কোর্টে তিনবার নীরব মোদীর জামিন নাকচ হয়ে গিয়েছে। বিচারক প্রত্যেকবারই আশঙ্কা করেছিলেন, একবার জামিন পেয়ে বেরোলে নীরব মোদী আর আদালতে আত্মসমর্পণ নাও করতে পারেন। তাছাড়া তিনি যে পরিমাণ জামানত রাখতে চাইছেন, তাও যথেষ্ট নয়।

Mumbai: 72 inmates, 7 officials of Arthur Road jail test positive for  Covid-19 | Mumbai News - Times of India
মুম্বই আর্থার রোড জেল

তাই শেষ পর্যন্ত ঠিক হচ্ছে ভারতের আদালতেই ঋণ খেলাপি মামলার বিচার হবে নীরবের। তার জন্য ভারতের জেলেই রাখা হবে তাঁকে। এদিকে মুম্বইয়ের আর্থার রোড জেলে এখন সাজো সাজো রব। হাই প্রোফাইল আসামিকে রাখতে প্রস্তুতি শুরু হয়ে গিয়েছে। ১২ নম্বর ব্যারাকে নিরাপত্তা অনেক বাড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। যে সেলে রাখা হবে নীরব মোদীকে তার আশপাশে কমসংখ্যক কয়েদি থাকবে। জেলের ভেতর তাঁকে শোওয়ার গদি, বালিশ, ব্ল্যাঙ্কেট সবই দেওয়া হবে। জেল কর্তৃপক্ষ বলেছেন, সেলে যথেষ্ট হাওয়া চলাচলের ব্যবস্থাও থাকবে। কাজেই নীরব মোদীর কোনও অসুবিধা হওয়ার কথাই নয়।

This is Barrack 12 of Arthur Road Jail, where India wants to keep Vijay  Mallya | Explained News,The Indian Express


নীরবের বর্তমান ঠিকানা দক্ষিণ লন্ডনের জেলটি কেমন?

ভারতের জেলে ফিরবেন না বলে বেঁকে বসেছেন হীরে ব্যবসায়ী। এদিকে দক্ষিণ লন্ডনের যে জেলে তাঁকে এখন রাখা হয়েছে তার হালহকিকত কেমন তা জেনে নেওয়া যাক।

HM Prison Wandsworth - Wikipedia

লন্ডন এবং ওয়েলসের যতগুলো জেল রয়েছে, তার মধ্যে সবচেয়ে ঘিঞ্জি হলো ‘হার ম্যাজেস্টি’স প্রিসন।’ ওয়ান্ডসওয়ার্থের এই জেলে কয়েদিদের ঠাসাঠাসি ভিড়। গ্রেফতার হওয়ার আগে পর্যন্ত ওয়েস্ট এন্ডের বিলাসবহুল অ্যাপার্টমেন্টে কাটিয়েছেন নীরব। সেখান থেকে সরাসরি তাঁকে তুলে আনা হয়েছে এই জেলের ঘিঞ্জি পরিবেশে। ২০১৮ সালের মার্চে করা একটি সমীক্ষায় দেখা গেছে, এই জেলে বন্দির সংখ্যা ১৪২৮ জন। মাদক পাচারকারী কিংবা মানসিক ভাবে অসুস্থ বন্দিরা যেমন আছেন এখানে, তেমনই দাউদ ইব্রাহিমের ঘনিষ্ঠ বলে অভিযুক্ত জ়াবির মোতিও আপাতত এই জেলে। তাঁর আমেরিকায় প্রত্যর্পণের মামলা চলছে।

Wandsworth Prison living conditions deemed unacceptable

১৮৫১ সালে তৈরি হয় এই জেল। বহুবার এখানকার পরিবেশ নিয়ে অভিযোগ উঠেছে। বন্দির সংখ্যা যেমন বেশি, তেমনি পরিচ্ছন্নতার খামতি রয়েছে সেলগুলিতে।  যে সেলে এক জনের থাকার কথা, সেখানে রাখা হয় দু’জনকে। অপরিচ্ছন্ন শৌচাগার। দিনের বেশির ভাগ সময়ে বন্ধই থাকে সেলের দরজা।

You might also like
Comments
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More