এশিয়ান গেমসে সোনাজয়ী বক্সার ডিঙ্কো সিংয়ের জীবনাবসান, ক্যানসারে ভুগছিলেন তিনি

দ্য ওয়াল ব্যুরো: মাত্র ৪২ বছর বয়সেই প্রয়াত হলেন এশিয়ান গেমসে সোনাজয়ী বক্সার ন্যাংগম ডিঙ্কো সিং। চার বছর ধরে ক্যানসারে ভুগছিলেন তিনি। ধরা পড়ে জন্ডিসও। এমনকী গত বছর কোভিডেও আক্রান্ত হন। পরে সেরেও ওঠেন। কিন্তু ক্যানসারের সঙ্গে যুদ্ধে জিততে পারলেন না ডিঙ্কো।

মণিপুরের এই বক্সার ১৯৯৮ সালের ব্যাঙ্কক এশিয়ান গেমসে সোনা জেতেন। সেই বছরই তাঁকে অর্জুন পুরস্কার দেওয়া হয়। ২০১৭ সালে হঠাৎ করে ডিঙ্কো সিংয়ের যকৃতে কর্কট রোগ বাসা বাঁধে। ডায়াগনোসিসের পর চিকিৎসাও শুরু হয়। গত বছর জানুয়ারি মাসে দিল্লি গেছিলেন রেডিয়েশন নিতে। পরে ইম্ফলের বাড়িতে ফিরে আসেন। এপ্রিলে শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় ফের রাজধানী ছুটতে হয়। ওই একই বছর তাঁর কোভিডও ধরা পড়ে। সুস্থ হয়ে উঠলেও শরীর ধকল নিতে পারেনি বলে চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন।

Asian Games gold-medalist boxer Dingko Singh to be airlifted from Imphal to  Delhi for cancer treatment - myKhel

এদিকে প্রাক্তন বক্সারের অকালমৃত্যুতে দেশের ক্রীড়াজগতে বিষাদের ছায়া। কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রী কিরণ রিজিজু টুইটে লেখেন, ‘ডিঙ্কো সিংয়ের প্রয়াণে আমি শোকাহত। তিনি এককথায় দেশের সর্বকালের অন্যতম শ্রেষ্ঠ বক্সার। ১৯৯৮ সালে এশিয়ান গেমসে পদকজয় ভারতের বক্সিং দুনিয়ায় ব্যাপক বদল এনেছিল। আমি তাঁর পরিবারের সদস্যদের প্রতি আন্তরিক সমবেদনা জানাচ্ছি।’

দেশের প্রথম অলিম্পিক খেতাবজয়ী বক্সার বিজেন্দ্র সিংও ডিঙ্কোর মৃত্যুতে শোকপ্রকাশ করেছেন। তিনি টুইটারে লেখেন, ‘তাঁর জীবনযুদ্ধ আগামী প্রজন্মের কাছে অঅনুপ্রেরণা হয়ে থাকবে। প্রার্থনা করি, তাঁর পরিবার এই শোকের সময় কাটিয়ে ওঠার শক্তি খুঁজে পাবেন।’

বক্সিং রিং তথা ক্রীড়াজগতে অবদানের স্বীকৃতি হিসেবে ২০১৩ সালে পদ্মশ্রী খেতাব অর্জন করেন ডিঙ্কো। পেশাগতভাবে নৌ-সেনায় কর্মরত থাকলেও বক্সিং কেরিয়ার শেষ করে তিনি কোচিংকে বেছে নেন।

Leave a comment

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More