চোখে চোখ, ঠিক এর পরেই প্রোপোজ করেন অভিষেক, ‘গুরু’র প্রিমিয়ারের সেইসব ছবি দেখালেন ঐশ্চর্য

দ্য ওয়াল ব্যুরো: টাইট করে পেতে চুল বাঁধা। একেবারে ফাঁকা সিঁথি। মাঝ কপালে টিপ। চোখের নীচে অল্প কাজল। প্রাণোচ্ছ্বল মেয়েটি যেমন জেদি, তেমন কোমল। বৃষ্টিদিনে ‘বারসো রে মেঘা মেঘা…’য় একা একাই নদীর ধারে নেচে উঠছে মেয়েটি। প্রেমে পড়ারই তো মতো। যুবতী থেকে পাকা চুলের গিন্নি হয়ে ওঠা পর্যন্ত তাঁর দিক থেকে এক মুহূর্ত চোখ ফেরাতে পারেননি কেউ। না পেরেছেন অভিষেক বচ্চনের থেকে চোখ সরাতে। তিনি ‘গুরু’র ঐশ্বর্য রাই বচ্চন।

আজ থেকে ১৪ বছর আগে রিলিজ করেছিল মণিরত্নমের ‘গুরু’। তাঁর প্রতিটা সিনেমাই যেন স্বপ্নের মতো। ‘গুরু’তেও মণিরত্নমের স্পেশ্যাল ম্যাজিক দেখতে পেয়েছিলেন দর্শকরা। যে সিনেমা শুধু বক্স অফিসে ঝড়ই তোলেনি। বরং সিনেমার দৃশ্যাবলী, গান, লিরিক্স, অভিনয়, ক্যামেরার কাজ সবটাই মুগ্ধ করেছিল সকলকে।

একই সিনেমায় তাবড় তাবড় অভিনেতাদের সমাবেশ। একদিকে ঐশ্বর্য, অভিষেক বচ্চন, অন্যদিক আর মাধবন, বিদ্যা বালান, মিঠুন চক্রবর্তী। প্রত্যেকের অভিনয় দেখতে দেখতে সিনেমায় এখনও ঢুবে যায় দর্শকরা। সেই সিনেমার ১৪ বছর আগের স্মৃতি সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করলেন বিশ্বসুন্দরী।

গতকাল ইনস্টাগ্রামে একটি পোস্ট করেছিলেন ঐশ্বর্য। চারটে ছবির কোলাজের ক্যাপশনে লিখেছিলেন, “আজকের দিন…১৪ বছর আগে…’গুরু’ চিরকাল!” ছবিতে ঐশ্বর্য, অভিষেক ছাড়াও রয়েছেন পরিচালক মণিরত্নম। তুঁতে নীল রঙের শাড়িতে ঐশ্বর্যের থেকে চোখ ফেরানো দায়। নিউ ইয়র্কে এই সিনেমার প্রিমিয়ারের জন্যেই তিনজনে সেখানে উপস্থিত ছিলেন।

ঐশ্বর্যর পোস্টের পর একদিকে যেমন ‘গুরু’র দৃশ্য নেটিজেনদের চোখের সামনে ভাসছে, তেমনই অনেকের মনে পড়েছে অভিষেক বচ্চনের কথা। কী বলেছিলেন অভিষেক? এক সাক্ষাৎকারে জুনিয়র বচ্চন বলেছিলেন, “তাঁকে আমি বহুদিন ধরেই পছন্দ করতাম। বলার সাহস পাইনি। নিউ ইয়র্কের এক হোটেলের ব্যালকনিতে দাঁড়িয়ে ভাবছিলাম, যদি এখানে কখনও দেখা হয়, এই ব্যালকনিতে দাঁড়িয়েই আমি তাঁকে প্রোপোজ করব। তারপর ‘গুরু’র প্রিমিয়ারের জন্য নিউ ইয়র্ক গেলাম। প্রিমিয়ারের পরেই তাঁকে নিয়ে এলাম সেই হোটেলের ব্যালকনিতে। সেই দিনই ঐশ্বর্যকে আমি প্রোপোজ করি।” অর্থাৎ ঐশ্বর্য-অভিষেকের প্রেম শুরু হওয়ারও ১৪ বছর পূরণ হল।

ঐশ্বর্যর পোস্টে আবার কেউ কেউ মন্তব্য করেছেন যে মণিরত্নম-ঐশ্বর্য জুটিকে ফের তাঁরা বড় পর্দায় দেখতে চান। অন্যদিকে শোনা যাচ্ছে আবারও নাকি এই জুটি একসঙ্গে কাজ করতে চলেছেন। মণিরত্নমের পরবর্তী সিনেমা ‘পন্নিইয়ান সেলভান’-এ দ্বৈত চরিত্রে অভিনয় করতে দেখা যাবে ঐশ্বর্যকে। এই খবরই বেশ চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। ফের মণিরত্নমের ম্যাজিক দেখার অপেক্ষায় রয়েছেন এখন সকলে।

You might also like
Comments
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More