ব্রাজিল খেলল ব্রাজিলের মতোই, জয় পাঁচ গোলে, খেললেন নেইমারও

কাতারে বিশ্বকাপ যোগ্যতা পর্বের এই ম্যাচগুলিতে হেভিওয়েট সব দলই জয় দিয়ে তাদের অভিযান শুরু করেছে। আর্জেন্টিনা জিতেছিল কষ্ট করে, তাই ব্রাজিল কী করে, সেদিকে তাকিয়ে ছিল ফুটবল প্রেমীরা।

দ্য ওয়াল ব্যুরো : ঝলসে উঠল ব্রাজিল। সাও পাওলোয় নিজেদের মাঠে লাতিন আমেরিকা গ্রুপ পর্বের ম্যাচে বলিভিয়াকে ৫-০ গোলে হারিয়ে দিয়েছে সাম্বা দল।

কাতারে বিশ্বকাপ যোগ্যতা পর্বের এই ম্যাচগুলিতে হেভিওয়েট সব দলই জয় দিয়ে তাদের অভিযান শুরু করেছে। আর্জেন্টিনা জিতেছিল কষ্ট করে, তাই ব্রাজিল কী করে, সেদিকে তাকিয়ে ছিল ফুটবল প্রেমীরা। কিন্তু ব্রাজিল খেলল ব্রাজিলের মতোই।

শনিবার ব্রাজিলের উজ্জীবিত ফুটবলের সামনে পাত্তাই পায়নি বলিভিয়া। রবার্তো ফিরমিনো, নেইমার জুনিয়র, ফিলিপে কুটিনহোদের দুরন্ত ফুটবল শৈলিতে বিপক্ষ দলের নাভিশ্বাস উঠে গিয়েছে।

খেলায় জোড়া গোল করেছেন লিভারপুলের ফরোয়ার্ড রবার্তো ফিরমিনো। এছাড়া একটি করে গোল করেন বার্সেলোনা ফরোয়ার্ড কুটিনহো এবং প্যারিস স্যঁ জ্যঁ-র ডিফেন্ডার মার্কুইনহোস। অন্যটি ছিল আত্মঘাতী গোল। চোট মুক্ত হয়ে মাঠে নেমেছিলেন নেইমার, গোল করতে না পারলেও তাঁর ছন্দময় ফুটবলে সতীর্থরাও সহায়তা পেয়েছেন।

ঘরের মাঠে এগিয়ে থেকে শুরু করে তিতের ব্রাজিলই। নিজেদের আধিপত্যের প্রমাণ দিতে একদমই সময় নেননি নেইমার-ফিরমিনোরা। প্রথম গোলটি করেছিলেন ডিফেন্ডার মার্কুইনহোস। ম্যাচের ১৬ মিনিটের সময় দানিলোর মাপা ক্রসে ছয় গজের বক্সের মুখে দাঁড়িয়ে সহজ হেডে দলকে এগিয়ে দেন পিএসজি ডিফেন্ডার।

দ্বিতীয় গোলের সময় পেনাল্টি অঞ্চলের মধ্যে লোদির উদ্দেশ্যে বল বাড়ান নেইমার। সেখান থেকে আরও সামনে থাকা ফিরমিনোকে বাড়িয়ে দেন লোদি। তখন স্রেফ পা ছোঁয়ানো ছাড়া আর কিছুই করতে হতো না ফিরমিনোকে। যা খুব সহজেই করেন লিভারপুল ফরোয়ার্ড। ব্রাজিল এগিয়ে যায় ২-০ গোলে।

ম্যাচের প্রথমার্ধে আর কোনও গোল হয়নি। একটি মজার তথ্য, বিরতির আগে মোট ৪৫ মিনিটের মধ্যে ৩৫ মিনিট বল দখলে রেখেছিলেন ব্রাজিলের ফুটবলাররা। তৃতীয় গোলটিও করেন ফিরমিনো। চতুর্থ গোলটি আসে আত্মঘাতী গোলে। বলিভিয়ার এক ডিফেন্ডার বল ক্লিয়ার করতে গিয়ে নিজেদের জালে বল জড়িয়ে দেন। শেষ গোলটি আসে নেইমারের মাঁপা সেন্টারে, শেষ কাজটি সারেন কুটিনহো।
দিনের অন্য ম্যাচে ভেনেজুয়েলার বিপক্ষে ৩-০ গোলে জিতেছে কলম্বিয়া। জোড়া গোল করেছেন লুইস ফার্নান্দো মুরিয়েল ফুতো এবং অন্য গোলটি আসে দুভান জাপাতার পা থেকে। তারাই এখন পয়েন্ট টেবিলের দ্বিতীয় স্থানে।

ব্রাজিল : ওয়েভারটন, রেনান লোদি, মারকুইনহোস, থিয়াগো সিলভা, দানিলো, ফিলিপে কুটিনহো, ক্যাসেমিরো, ডগলাস লুইজ, নেইমার, রবার্তো ফিরমিনো এবং এভারটন।
ব্রাজিলের রিজার্ভ বেঞ্চ : এডেরসন, আদেরবার সান্তোস, অ্যালেক্স তেলেস, রদ্রিগো সাইও, ফেলিপে, ফাবিনহো, ব্রুনো গুইমারেস, রিচার্লিসন, ম্যাথিউন কুনহা, এভারটন রিবেইরো, রদ্রিগো এবং গ্র্যাব্রিয়েল মেনিনো।

You might also like
Comments
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More