মোদী তো তৃণমূল-মুক্ত ভারতের কথা বলছেন না: উত্তরবঙ্গে রাহুল গান্ধী

দ্য ওয়াল ব্যুরো: ২০১৪ সালে দিল্লির তখতে বসার পরেই নরেন্দ্র মোদী ডাক দিয়েছিলেন কংগ্রেস-মুক্ত ভারত গড়ার। তারপর গত সাত বছরে মোদী জমানায় বহু বিজেপি শাসিত রাজ্য দখল করেছে কংগ্রেস। কোথাও একক ভাবে, কোথাও জোট করে। এবার বাংলার প্রচারে এসে প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী বললেন, ‘নরেন্দ্র মোদী তো কংগ্রেস-মুক্ত ভারতের কথা বলেন। কই তৃণমূল-মুক্ত করার কথা তো বলেন না?”

প্রসঙ্গত কেরলে প্রচারে গিয়েও একই কথা বলেছিলেন রাহুল। প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতি বলেন, “প্রধানমন্ত্রী তো কংগ্রেস মুক্ত ভারতের কথা বলেন, কই সিপিএম মুক্ত ভারতের কথা তো বলেন না!”

এদিন গোয়ালপোখর ও মাটিগাড়া-নকশালবাড়িতে সভা করেন রাহুল গান্ধী। সেই সভা থেকে তৃণমূল ও বিজেপি-র বিরুদ্ধে একযোগে তোপ দাগেন ওয়ানাড়ের সাংসদ। রাহুল বলেন, “একদিকে মমতাজির সরকার গত ১০ বছর ধরে বাংলার বরবাদ করেছে আর মোদীজির সরকার দেশের বারোটা বাজিয়েছে।”

বাংলায় বিজেপি বিভেদের রাজনীতির আমদানি করেছে বলেও অভিযোগ করেন রাহুল। তাঁর কথায়, “আসলে বিজেপির উদ্দেশ্যই হচ্ছে নিজেদের মধ্যে মানুষকে লড়িয়ে দেওয়া। যাতে ওদের কেউ প্রশ্ন করতে না পারে। বলেছিল বছরে দু’কোটি বেকারের চাকরি দেবে, দিয়েছে? দেশের অর্থনীতিকে সর্বনাশের দোরগোড়ায় দাঁড় করিয়েছে বিজেপির সরকার।” তাঁর কথায়, “বিজেপির বিরুদ্ধে কংগ্রেসের আদর্শের লড়াই। সেই লড়াই লড়তে হবে মতাদর্শ দিয়েই। নরেন্দ্র মোদী ভাল মতো জানেন, রাহুল গান্ধী তাঁকে ভয় পায় না। বরং তিনি রাহুল গান্ধীকে ভয় পান।”

বাংলায় চার দফা ভোটে কেন্দ্রীয় কংগ্রেসের নেতারা কেন আসছেন না তা নিয়ে প্রশ্ন উঠছিল। তবে পঞ্চম দফার আগে বাংলায় এলেন রাহুল। এবং গোয়ালপোখরের সভায় দাঁড়িয়ে বললেন, “বাংলাকে বাঁচাতেই এসেছি।”

You might also like
Comments
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More