সামনে পেলে খুন করব ফ্রান্সের প্রেসিডেন্টকে, নারায়ণগঞ্জের সাংসদের হুমকিতে তোলপাড়

দ্য ওয়াল ব্যুরো: বাংলাদেশের নারায়ণগঞ্জের সাংসদ লিয়াকত হোসেনের মন্তব্যে তোলপাড় বাংলাদেশের রাজনীতি। ঝড় বইছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। যদিও তীব্র বিতর্কের মধ্যেও নিজের বক্তব্যে অনড় জাতীয় পার্টির নেতা।

কী বলেছেন লিয়াকত?

সম্প্রতি নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ পৌরসভার আমিনপুরের একটি মাঠে প্রয়াত আমির শাহ শরীফের স্মরণ সভার মঞ্চ থেকে এই সাংসদ বলেন, “আমি যদি ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল মাখোঁকে সামনে পেতাম তাহলে তাঁকে খুন করে ফাঁসির দড়ি পড়তাম।”

এখানেই থামেননি তিনি। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উদ্দেশে তিনি বলেন, ফ্রান্সের সঙ্গে সমস্ত কূটনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন করুক বাংলাদেশ। হাসিনার উদ্দেশে তাঁর বার্তা, “৯ নভেম্বর থেকে সংসদ অধিবেশন শুরু হচ্ছে। সেখানে আপনি ফ্রান্সের সঙ্গে সমস্ত কূটনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন করার প্রস্তাব আনুন। দেখবেন সমস্ত মুসলমান আপনার পাশে দাঁড়াবে।”

আইনসভার একজন দায়িত্বশীল সদস্য কী করে এই ধরনের মন্তব্য করেন তা নিয়ে ইতিমধ্যেই প্রশ্ন উঠছে। লিয়াকত হোসেনের নিজের দলও এই মন্তব্যের দায় তাঁর ঘাড়েই চাপিয়েছে। জাতীয় পার্টির এক মুখপাত্র বলেন, লিয়াকত হোসেন যা বলেছেন সবটাই তাঁর ব্যক্তিগত মত। এর সঙ্গে দলের যোগ নেই।দল এই বক্তব্যকে অনুমতি দেয় না।

আওয়ামী লিগের তরফেও এই বক্তব্যের বিরোধিতা করা হয়েছে। বলা হয়েছে, একজন সাংসদ কখনও একজন রাষ্ট্রপ্রধান সম্পর্কে এ হেন মন্তব্য করতে পারেন না।

যদিও সাংসদ তাঁর বক্তব্যে অনড়। লিয়াকত বলেছেন নিজের বক্তব্যে অনুতপ্ত নন।

You might also like
Comments
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More