বাংলাদেশের হিংসার ঘটনায় সরব বিজেপি, মোদীকে চিঠি শুভেন্দুর

1

দ্য ওয়াল ব্যুরো: দুর্গাপুজোর (Durga Pujo) সময় বাংলাদেশের (Bangladesh) একের পর মন্দির-মণ্ডপে হামলার ঘটনা সামনে এসেছে গত কয়েকদিনে। ১৩ অক্টোবর কুমিল্লার এক পুজো মণ্ডপে কোরান শরীফ পাওয়াকে কেন্দ্র করে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে ওপার বাংলা। এই ঘটনা নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে পশ্চিমবঙ্গের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী (Suvendu Adhikari) প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চিঠি দিয়েছেন। টুইট করে ঘটনার তীব্র নিন্দা করেন বঙ্গ বিজেপির (BJP) সভাপতি ড. সুকান্ত মজুমদার।

বাংলাদেশের সংখ্যালঘু হিন্দু সম্প্রদায়ের দুরবস্থার কথা তুলে ধরে চিঠিতে শুভেন্দু অধিকারী লেখেন, “বাংলাদেশের হিন্দুদের জন্য এবারের দুর্গাপুজোর আনন্দে বিষাদে পরিণত হয়েছে।” এমনকি এপার বাংলায় থাকা ওপার বাংলার হিন্দুদের আত্মীয়স্বজনও চরম উদ্বেগের মধ্যে আছেন বলে চিঠিতে তুলে ধরেন শুভেন্দু।

এই ঘটনায় নরেন্দ্র মোদীর হস্তক্ষেপ চেয়েছেন বিরোধী দলনেতা। বাংলাদেশের ‘সনাতনী’ সংখ্যালঘুদের প্রায়শই এহেন হিংসার ঘটনার সম্মুখীন হতে হয় বলে চিঠিতে অভিযোগ তোলেন শুভেন্দু অধিকারী।

আরও পড়ুনঃ বাংলাদেশে শান্তি রক্ষায় কড়া বার্তা হাসিনার, কঠোর পদক্ষেপ প্রশাসনের

অন্যদিকে এই ঘটনা নিয়ে বঙ্গ বিজেপির সভাপতি টুইট করে নিন্দা করেন। তিনি পোস্টে লিখেছিলেন, “বাংলাদেশে মৌলবাদীদের দ্বারা হিন্দুদের উপর হামলা এবং প্রতিমার ভাঙচুর নিন্দনীয় বিষয়। ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাই। সেখানে বসবাসরত সংখ্যালঘু হিন্দুদের সুরক্ষার জন্য বাংলাদেশ সরকারের উচিৎ পদক্ষেপ নেওয়া।”

এর মধ্যেই ঘটনার তীব্র নিন্দা করে কড়া ব্যবস্থা নেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। অতিরিক্ত পুলিশ ও সেনা মোতায়েন করা হয়েছে। প্রায় ৩৪ জনকে ঘটনায় গ্রেফতার করা হয়েছে এখনও পর্যন্ত।

পড়ুন দ্য ওয়ালের সাহিত্য পত্রিকা ‘সুখপাঠ’

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.