দলকে অনেক দূর এগিয়ে দিয়েছি, বলছেন দিলীপ ঘোষ

1

দ্য ওয়াল ব্যুরো: ‘শূন্য থেকে শুরু করেছি, আজ বাংলা থেকে বিজেপির এতগুলো বিধায়ক-সাংসদ…’, রবিবার দ্য ওয়ালকে দেওয়া একান্ত সাক্ষাৎকারে সেই সফলতাকেই মনে করালেন বঙ্গ বিজেপির প্রাক্তন রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। তাঁর দাবি, বাংলার রাজনৈতিক মঞ্চে বিজেপির খুঁটি শক্ত করা থেকে শুরু করে বিজেপির সংগঠনের সফলতার জায়গায় পৌঁছে দিয়েছেন তিনি।

সম্প্রতি বঙ্গ বিজেপির সাংগঠনিক পদে বড় রদবদল ঘটেছে। দু’বার দায়িত্বে থাকার পর কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের সিদ্ধান্তের ফলে রাজ্য বিজেপির সভাপতির পদ ছেড়েছেন দিলীপ ঘোষ। বর্তমানে তিনি বিজেপির সর্বভারতীয় সহ সভাপতি। নামের ওজনে পদটা বেশি হলেও দায়িত্বের দিক থেকে গুরুত্ব নিয়ে প্রশ্ন আছে রাজনৈতিক মহলে। এবার সেই রদবদল নিয়ে নিজের প্রতিক্রিয়া জানালেন দিলীপবাবু।

দলবদলুরা গরু-ছাগলই, অনড় দিলীপ

তিনি বলেন, “সাফল্য-অসাফল্য নিয়েই জীবন। সময়ের সঙ্গে সঙ্গে পদ বেড়েছে, দায়িত্ব বেড়েছে। কখনও বিধায়ক বা সাংসদ হব ভাবিনি। কাজ করেছি সফলতা এসেছে, সভাপতি হয়েছি, এতজন এমএলএ-এমপি হয়েছে। এখন দল আমাকে বড় দায়িত্ব দিয়েছে। সময়ের সঙ্গে সব মানিয়ে নিতে হবে।”

তাঁর কথার পরতে পরতে উঠে এসেছে তাঁর জামানায় সফলতার গল্প। শূন্য থেকে শুরু করে বর্তমান জায়গায় নিয়ে যাওয়ার গল্প। তিনি বলেন, “দিলীপ ঘোষ যখন এসেছিল তখন জিরো ছিল। আমার সময়ে বিধানসভা, পঞ্চায়েত, লোকসভা সব নির্বাচনেই বাংলায় বিজেপি ভালো ফল করেছে।”

এমনকি এই পরিবর্তনের জন্য কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের কাছে নিজেই সুপারিশ করছিলেন বলে জানান তিনি। তাঁর কথায়, “কেউ সারাজীবন একই পদে থাকবে তা হয় না। আমি যা চালানোর চালিয়েছি। এখন সামনে কোনও নির্বাচন নেই, তাই নতুন কেউ দায়িত্ব পেলে সে হাতে এখন থেকেই সময় পাবেন গুছিয়ে নেওয়ার।”

তারপরই তিনি যোগ করেন, “জিরো থেকে শুরু করেছি। এখন যিনি দায়িত্ব পেলেন তিনি তো তাও অনেক বিধায়ক-সাংসদদের সমর্থন পাবেন। নিজেও সাংসদ। আমাকে তখন কেউ চিনত না। সাধারণ কর্মী হিসেবে শুরু করেছি। দলের অনেক পদ সামলেছি।”

তবুও দিলীপ ঘোষের বিকল্প কি সঠিক ভাবা হয়েছে? তাঁর কথায়, “কারও বিকল্প কেউ হয় না। হয় ভালো হয়, নয় খারাপ। আশা করব ভালোই হবে। এখন ওঁকে সাহায্য করার জন্য অনেকে আছেন।”

বলাই চলে, গাড়ি চালানোর প্রথম ঝড় সামলে গাড়িকে জোর কদমে ছুটিয়ে দিয়েছিলেন দিলীপ ঘোষ। এখন এটাই দেখার চলতি গাড়িকে কোনদিকে নিয়ে যান বর্তমান বিজেপির রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার।

পড়ুন দ্য ওয়ালের সাহিত্য পত্রিকা ‘সুখপাঠ’

You might also like
1 Comment
  1. […] দলকে অনেক দূর এগিয়ে দিয়েছি, বলছেন দি… […]

Leave A Reply

Your email address will not be published.