ঝাড়গ্রামে সাতসকালে গ্ৰাম দাপিয়ে বেড়াল দলমার দলছুট ‘রামলাল’

0

দ্য ওয়াল ব্যুরো: জঙ্গলে রসদ ফুরিয়েছে। তাই খাবারের খোঁজে সাতসকালে গ্ৰামের রাস্তায় দাপিয়ে বেড়াল দলমার দলছুট দাঁতাল (elephant)। রবিবার সকালে ঝাড়গ্ৰামের গোপীবল্লভপুর ২ নং ব্লকের আকনা,মালিঞ্চা সহ একাধিক গ্রামে তছনছ চালাল সেই দাঁতাল। সেই দেখে আরেক কান্ড, হাতির পেছনে ছুটতে থাকে আট থেকে আশির দল। রীতিমতো এলাকায় শোরগোল পড়ে যায়।

বেশ কিছুক্ষণ লোকালয়ে দাপিয়ে বেড়ানোর পরে অবশেষে দাঁতালটি সুবর্ণরেখা পেরিয়ে গোপীবল্লভপুর ১ নং ব্লকে প্রবেশ করে।

ফের নিম্নচাপের ভ্রূকুটি, রবিবার ভিজল কলকাতা, উত্তরবঙ্গে ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস

তবে জঙ্গলমহলের হাতি-আতঙ্ক যেন কখনওই পিছু ছাড়ে না। প্রতিনিয়ত হাতির তাণ্ডবে গ্রাম তছনছ হচ্ছে রাতবিরেতে। তাই ভয়ে ভয়েই রয়েছেন এলাকার মানুষ।

তার মধ্যেই এদিন জঙ্গল ছেড়ে গোপীবল্লভপুর ১ নম্বর ব্লকের এলাকায় হানা দিল দলছুট দাঁতাল, স্থানীয়রা তাকে রামলাল নামেই চেনেন। এদিন ভোরে রামলাল গ্রাম টহল দিতে শুরু করে। গোপীবল্লভপুর ২ নম্বর ব্লকের জঙ্গল এলাকা থেকে সুবর্ণরেখা নদী পার হয়ে গোপীবল্লভপুর ১ নম্বর ব্লকের আলমপুর গ্রামের কাছে নদীর পাড় বেয়ে ওঠে। পরে পিড়াশিমূল, টোপগেড়িয়া বাকড়া হয়ে জঙ্গলে ঢুকে পড়েছে বলে জানা গেছে।

তবে নেহাত খালি হাতে ফেরেনি রামলাল। গ্রাম পার হওয়ার সময় পিড়াশিমূল গ্রামের একটি মাটির বাড়ি ভেঙে একটি চালের বস্তা সাবাড় করে যায়। আরও বেশকিছু জিনিসপত্রও সে নষ্ট করেছে বলে জানিয়েছেন গ্রামবাসীরা।

এদিন বিকেলে বেশকিছু হাতিকে আবার নদীতে স্নান করতে দেখা যায়। তবে স্নান সেরে যাতে জঙ্গলে ফিরে যায় ওরা সেই কামনাই করতে থাকেন এলাকাবাসী। জঙ্গল লাগোয়া গ্রামে এসে যাতে হাতির দল উৎপাত না করে সেই দেখতে নজরদারি চালায় বন দফতর।

পড়ুন দ্য ওয়ালের সাহিত্য পত্রিকা ‘সুখপাঠ’

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.