পেটিএম, মেক মাই ট্রিপেও হবে ভ্যাকসিনের বুকিং, কেন্দ্রের সবুজ সংকেতের অপেক্ষা

দ্য ওয়াল ব্যুরো: করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে জেরবার ভারত। গণহারে টিকাকরণ শুরু করেও সংক্রমণ আটকানো যায়নি। তবে মে মাস জুড়ে ভাইরাসের যে ধ্বংসাত্মক রূপ দেখেছে সারা দেশ, এখন তার প্রকোপ কিছুটা কমে এসেছে। কোভিডের বিরুদ্ধে টিকাকরণই একমাত্র অস্ত্র, বলেছেন বিশেষজ্ঞরা।

এমন অবস্থায় ভারতে টিকাকরণে গতি বাড়াতে এগিয়ে এল পেটিএম, মেক মাই ট্রিপ আর ইনফোসিসের মতো সংস্থা। অনলাইনে ভ্যাকসিনের জন্য বুকিংয়ের প্ল্যাটফর্ম খুলে দিতে চায় তারা। এই মর্মে অনুমতি চেয়ে তারা ভারত সরকারের কাছে আর্জিও জানিয়েছে বলে খবর।

সম্প্রতি দেশের সকল নাগরিককে বিনামূল্যে ভ্যাকসিন দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। গত মাসে অন্যান্য অ্যাপে ভ্যাকসিন বুকিং সিস্টেমের নিয়মকানুনও শিথিল করেছে কেন্দ্র সরকার। ভারতের বিপুল পরিমাণ জনসংখ্যার একশো শতাংশ টিকাকরণ যাতে আরও দ্রুত হয়, তার জন্যেই এই পদক্ষেপ। তাছাড়া ভ্যাকসিন বুকিংয়ের জন্য সরকারের তরফে যে অ্যাপ খোলা হয়েছে তাতেও নানাবিধ সমস্যার মুখোমুখি হয়েছেন মানুষ।

১ কোটির বেশি মানুষ প্রতিমাসে পেটিএম ব্যবহার করে থাকেন। মেক মাই ট্রিপ ব্যবহার করেন গড়ে ১ কোটি ২০ লক্ষ মানুষ। সরকারি অ্যাপে ভ্যাকসিনের জন্য স্লট বুক করতে যখন সমস্যা হচ্ছে তখন মানুষ এই সমস্ত অ্যাপে যে অনেক বেশি স্বচ্ছন্দ বোধ করবেন তা বলাই বাহুল্য।

সরকারি সূত্রের মতে, একটি প্ল্যাটফর্ম না করে যদি ভ্যাকসিন বুকিংয়ের জন্য অনেকগুলি প্ল্যাটফর্ম চালু করা যায় তবে এই প্রক্রিয়া অনেক সহজ হয়ে যাবে। টিকাকরণেও গতি অনেক
আসবে। তাতে দেশের মানুষেরই ভাল হবে।

আপাতত সরকারের সবুজ সংকেতের অপেক্ষা। তা মিললেই পেটিএম ইনফোসিস মেক মাই ট্রিপে চালু হয়ে যাবে কোভিড ভ্যাকসিনের স্লট বুকিং।

You might also like
Comments
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More