জম্মুকে বৈষম্যের মুখে পড়তে দেব না, আর কোনও অবিচার নয়: অমিত শাহ

1

দ্য ওয়াল ব্যুরো: আগে যা হয়েছে হয়েছে, এবার আর কোনও বৈষম্যের শিকার হতে দেওয়া হবে না জম্মুকে (People of Jammu)। জম্মু ও কাশ্মীর সফরের দ্বিতীয় দিনে এমনটাই জানালেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী অমিত শাহ। আজ তাঁর ফোকাসে ছিল জম্মুর উন্নয়ন। তিনি জম্মুর কথা উল্লেখ করে, তার বৈষম্য দূর হয়েছে বলে দাবি করে, ৩৭০ ধারা প্রত্যাহারের পক্ষে ফের যুক্তি দেন এদিন।

রবিবার জম্মু ও কাশ্মীরে অমিত শাহ বলেন, “কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের লেফটেন্যান্ট গভর্নর এবং কেন্দ্রীয় মন্ত্রী জিতেন্দ্র সিংহের নেতৃত্বে জম্মুতে উন্নয়নের নতুন যুগের সূচনা হচ্ছে। জম্মু আগে অনেক বৈষম্যের শিকার হয়েছে। প্রশাসন এখন নিশ্চিত করছে যাতে জম্মু ও কাশ্মীরের ন্যায়সঙ্গত উন্নয়ন হয়।”

দু’বছর আগে সংবিধানের ৩৭০ ধারা বাতিল করে জম্মু ও কাশ্মীরের থেকে বিশেষ রাজ্যের মর্যাদা ছিনিয়ে নিয়ে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে পরিণত করা হয়। তার পরে এটাই ছিল কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর প্রথম সফর। এই সফরে তিনি দাবি করলেন, “৩৭০ ধারা প্রত্যাহার করার পরে বাল্মীকি, পাহাড়ি, গুজ্জর, বাকেরওয়াল, পশ্চিম পাকিস্তানের শরণার্থী– এই সমস্ত সম্প্রদায়ের মানুষের প্রতি ন্যায়বিচার করা হয়েছে।”

শোপিয়ানে নিহত তরুণ আপেল ব্যবসায়ী, সিআরপিএফের বিরুদ্ধে গুলি চালানোর অভিযোগ

এদিন জম্মুতে ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অফ টেকনোলজির একটি নতুন ক্যাম্পাসের উদ্বোধন করেন অমিত শাহ। তারপর ভগবতীনগর মাঠে একটি জনসভায় যান। সেখানেই তিনি এদিন জম্মুকে ফোকাস করেন। তিনি বলেন, “কেউ কেউ এই অঞ্চলের উন্নয়নকে সাইড করে রাখতে চেয়েছিল। সরকার তা হতে দেয়নি। সমাজের সব শ্রেণির জন্য ন্যায়বিচার নিশ্চিত করতে বেশ কিছু আইন আনা হয়েছিল। আজ জম্মুবাসীর প্রতি অবিচারের সময় শেষ, এখন কেউ আপনার প্রতি অবিচার করতে পারবে না। আমি এটা বলতেই জম্মু এসেছি।”

পাশাপাশি, এদিন কাশ্মীরের রাজনীতিবিদদেরও তোপ দাগেন অমিত শাহ। তিনি বলেন, জম্মু-কাশ্মীরের সাধারণ জনগণের জন্য নেতারা কী করেছেন, তার কোনও ব্যাখ্যা নেই।

You might also like
1 Comment
  1. […] আরও পড়ুনঃ জম্মুকে বৈষম্যের মুখে পড়তে দেব না, আর… […]

Leave A Reply

Your email address will not be published.