আজ ভোটগণনাতেও সন্ত্রাসের আশঙ্কা 

দ্য ওয়াল ব্যুরো: ভোট গণনা শুরুর আগেই উত্তপ্ত হয়ে উঠল উত্তর দিনাজপুরের চোপড়া। কংগ্রেসের এক নেতাকে গণনা  কেন্দ্রে ঢুকতে বাধা দেওয়ার অভিযোগ উঠল শাসকদলের বিরুদ্ধে। যথেচ্ছ বোমাবাজি ও শূন্যে গুলি চালানো হয় বলেও অভিযোগ করেছে কংগ্রেস। এরপরেই গণনা কেন্দ্রে না ঢুকে থানায় বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন বিরোধীরা। অবরোধ করা হয় জাতীয় সড়ক।
 গ্রাম বাংলা কার দখলে যাবে, তা এক প্রকার নিশ্চিত।  তবুও মনোনয়ন পর্ব থেকে শুরু হওয়া ‘সন্ত্রাসের’ স্রোত ঢেউ হয়ে আছড়ে পড়ে ১৪ মে। জেলায় জেলায় প্রাণ গিয়েছে। বাদ যায়নি পুনর্নির্বাচন প্রক্রিয়াও। কম বুথে বেশি নিরাপত্তা রেখেও বুধবার আটকানো যায়নি অস্ত্রের আস্ফালন থেকে ব্যালট বাক্স ছিনতাই। বৃহস্পতিবার গণনাতেও থেকে যাচ্ছে একই ভয়।
রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের মতে গণনার পর সন্ত্রাস আরও বাড়বে। অভিযোগ, জেলায় জেলায় বিভিন্ন গণনা কেন্দ্রে কাউন্টিং এজেন্ট করার মতো লোক ‘খুঁজে পায়নি’ বিরোধীরা। ভোট পরবর্তী হিংসা নিয়ে চিন্তিত প্রশাসনের একাংশও।
You might also like
Comments
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More