কম ভাড়ায় দূরপাল্লার ভলভো ছুটবে জেলায় জেলায়

0

দ্য ওয়াল ব্যুরো: উত্তরবঙ্গে ভলভো বাসের পরিষেবা চালু থাকলেও করোনার কারণে অনেক রুটই বন্ধ ছিল এতদিন। দক্ষিণে কয়েকটি রুটে বাসের ভাড়াও বেড়েছিল চড়চড় করে। রাজ্যের কোভিড পরিস্থিতি কিছুটা নিয়ন্ত্রণে আসায় এখন দূরপাল্লার যাত্রীদের কথা মাথায় রেখে দক্ষিণের কয়েকটি জেলায় কম ভাড়ায় ভলভো বাসের পরিষেবা চালু করল দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহন নিগম। আজ, বুধবার কসবার পরিবহণ ভবনে ভলভো বাসের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন পরিবহনমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম।

কলকাতা থেকে আসানসোল, ঝাড়গ্রাম, পুরুলিয়া, ফারাক্কা, কলকাতা থেকে কোলাঘাট, ডেবরা, কলকাতা থেকে আরামবাগ, বিষ্ণুপুর হয়ে পুরুলিয়া আবার কলকাতা থেকেই বর্ধমান, দুর্গাপুর ও আসানসোল রুটে চলবে ভলভো বাস। ন্যূনতম ভাড়া ৫০ টাকা হবে। নৈশ পরিষেবার ক্ষেত্রে এক একটি রুটে বাস ভাড়া এক এক রকম। তবে নিগম অফিসাররা জানিয়েছেন, বেসরকারি ভলভোর থেকে সরকারি পরিষেবায় বাস ভাড়া সাধ্যের মধ্যেই রাখা হয়েছে।

ভলভো পরিষেবার উদ্বোধন করে মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম বলেন, বাংলার পর্যটনের প্রসারই আসল লক্ষ্য। শীতের আগে এই পরিষেবা চালু হয়ে গেলে সারা বাংলার মানুষ উপকৃত হবেন। ফিরহাদ বলেন, “ভলভো বাস একটা সূচনা। আমরা পরিষেবা সেইসব জায়গায় পৌঁছে দিচ্ছি যেখানে আগে মানুষ খেতে পেত না। পুরুলিয়া, ঝাড়গ্রামের প্রত্যন্ত এলাকা থেকেও এখন মানুষজন কলকাতায় আসবেন, এখানে ব্যবসা-বাণিজ্য করবেন। পর্যটনের প্রসার হবে আবার সাধারণ মানুষ উপকৃতও হবেন।”

কলকাতা থেকে শিলিগুড়ি, জলপাইগুড়ি ইত্যাদি বিভিন্ন রুটে ভলভো পরিষেবা চালু করেছিল উত্তরবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহন নিগম। কিন্তু করোনার কারণে সেই পরিষেবা সফল হয়নি। কয়েকটি রুটে বাস সার্ভিস বন্ধও করে দিতে হয়। তবে এখন পরিস্থিতি কিছুটা বদলেছে। ফিরহাদ বললেন, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জনসাধারণের জন্য নানারকম সুবিধা এনেছেন। এখন স্বাস্থ্য সাথী কার্ডের সুবিধাও আছে। এমনতিও চিকিৎসার জন্য অন্যান্য জেলা থেকে কলকাতার হাসপাতালগুলিতে মানুষজন আসেন। কম ভাড়ায় ভলভো বাসের পরিষেবা পেলে পুরুলিয়ার প্রত্যন্ত এলাকা থেকেও কলকাতায় নিয়মিত যাতায়াত করতে পারবেন সাধারণ মানুষ। স্বাস্থ্য সাথী কার্ড দেখিয়ে শহরের নামী হাসপাতালে চিকিৎসার সুবিধাও পাবেন।

২০৩০ সাল অবধি রাজ্যের পরিবহন ব্যবস্থাকে ঢেলে সাজানোর উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে বলে জানালেন পরিবহন মন্ত্রী। তিনি বলেন, এখন জ্বালানীর খরচের জন্য বাস ভাড়া একটু বেশি। এরপরে বিকল্প ব্যবস্থা হলে আরও কম খরচে অনেক বেশি পরিষেবা পৌঁছে দেওয়া সম্ভব হবে।

পড়ুন দ্য ওয়ালের সাহিত্য পত্রিকাসুখপাঠ

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.