আজ থেকে বৃষ্টির তেজ আরও বাড়বে, নিম্নচাপের জেরে ভাসতে পারে বাংলার সাত জেলা

0

দ্য ওয়াল ব্যুরো: নিম্নচাপ সরাসরি বাংলার উপকূলে হানা দেয়নি। বঙ্গোপসাগরে ওপর ঘনিয়ে ওঠা নিম্নচাপ উত্তর অন্ধ্রপ্রদেশ ও সংলগ্ন এলাকায় তর্জনগর্জন করছে (Weather Forecast)। এর জেরেই বাংলার উত্তর থেকে দক্ষিণে ঝমঝমিয়ে বৃষ্টি হচ্ছে। মৌসুমী অক্ষরেখা বিদায় নিয়েছে। বর্ষাও পাততাড়ি গুটিয়েছে বাংলা থেকে। কিন্তু বৃষ্টি যাওয়ার নাম নেই। বঙ্গোপসাগরে একের পর এক নিম্নচাপ দানা বাঁধছে এবং এরই রেশ পড়ছে বাংলার উপকূলবর্তী জেলাগুলিতে। সেই দশমী থেকেই শুরু হয়েছে তুমুল বৃষ্টি। আলিপুর হাওয়া অফিস জানিয়েছে, আজ থেকে নাকি বৃষ্টির তেজ আরও বাড়বে। দক্ষিণবঙ্গের একাধিক জেলায় জারি হয়েছে সতর্কতা।

দুর্গাপুজো শুরুর আগে থেকেই বন্যা পরিস্থিতি তৈরি হয়েছিল দক্ষিণবঙ্গের একাধিক জেলায়। পুজোর পরেও ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস জারি হওয়ায় ফের মাথায় হাত পড়েছে শহরবাসীর। আলিপুর হাওয়া অফিস জানিয়েছে, মঙ্গলবার থেকে তুমুল ঝড়-বৃষ্টির সম্ভাবনা আছে কলকাতা সহ গাঙ্গেয় বঙ্গের সাত জেলায়। ভাসতে পারে উপকূলের জেলাগুলি। মঙ্গলবার পর্যন্ত মৎস্যজীবীদের সমুদ্রে যেতে নিষেধ করা হয়েছে।

আবহবিদরা বলছেন, এই বৃষ্টির সঙ্গে বর্ষার কোনও সম্পর্ক নেই। বঙ্গোপসাগরের ওপর ফের নিম্নচাপ ঘনিয়েছে। সেটির অবস্থান এখন উত্তর অন্ধ্র ও সন্নিহিত এলাকার ওপরে। এর জেরেই প্রচুর জলীয় বাষ্প ঢুকছে রাজ্যে। নিম্নচাপ রয়েছে তেলঙ্গানার উপরে। সেটি ক্রমশ উত্তর-পশ্চিমে সরে উত্তরপ্রদেশের দিকে যাবে। এই নিম্নচাপের প্রভাবে ওড়িশা, মধ্যপ্রদেশ ও উত্তরপ্রদেশে ভারী বৃষ্টির সতর্কতা জারি হয়েছে। এছাড়াও পশ্চিমী ঝঞ্ঝা ও পূবালী হওয়ার সংঘাতে উত্তর-পশ্চিম ভারতে ঝড়-বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছে হাওয়া অফিস। হরিয়ানা, চণ্ডীগড়, রাজস্থান, উত্তরাখণ্ড, হিমাচলপ্রদেশ ও উত্তরপ্রদেশে ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা আগামী কয়েকদিন। আজ প্রবল বৃষ্টি হতে পারে পশ্চিম উত্তরপ্রদেশ এবং উত্তরাখণ্ডের কিছু এলাকায়।

বাংলার কোন কোন জেলায় তুমুল বৃষ্টি হতে পারে–

আজ সোমবার–

ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা কলকাতা, হাওড়া, হুগলি, উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা এবং পূর্ব মেদিনীপুরে।
ভারী বৃষ্টিপাতের সতর্কতা দক্ষিণবঙ্গের বাকি জেলাগুলিতে।
উত্তরবঙ্গের দার্জিলিং, কালিম্পং এবং আলিপুরদুয়ারে ভারী বৃষ্টির সর্তকতা।
৫০ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টা বেগে ঝোড়ো হাওয়া বইবে উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা এবং পূর্ব মেদিনীপুরে।
৪০ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টা বেগে ঝোড়ো হাওয়া বইবে কলকাতা, নদিয়া, হাওড়া, হুগলি এবং পশ্চিম মেদিনীপুরে।

মঙ্গলবার
ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির সর্তকতা দার্জিলিং, জলপাইগুড়ি, কালিম্পং, কোচবিহার এবং আলিপুরদুয়ারে।
তুমুল বৃষ্টি হতে পারে কলকাতা, হাওড়া, উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা ও পূর্ব মেদিনীপুরে।
দক্ষিণবঙ্গের বাকি জেলায় বজ্রবিদ্যুৎ সহ হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টির সম্ভাবনা।
উত্তরবঙ্গের মালদা, উত্তর ও দক্ষিণ দিনাজপুরে ভারী বৃষ্টিপাতের সর্তকতা।

ঘণ্টায় ৪০ কিলোমিটার বেগে ঝোড়ো হাওয়া বইবে উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা ও পূর্ব মেদিনীপুরে। প্রতিকূল আবহাওয়ার জন্য আগামী মঙ্গলবার পর্যন্ত মৎস্যজীবীদের সাগরে মাছ ধরতে যেতে নিষেধ করা হয়েছে।

বুধবার
কোচবিহার ও আলিপুরদুয়ারে অতিভারী বৃষ্টিপাতের সর্তকতা।
ভারী বৃষ্টি হবে দার্জিলিং, কালিম্পং ও জলপাইগুড়ি জেলায়।
দক্ষিণবঙ্গের মুর্শিদাবাদ ও বীরভূমে ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছে হাওয়া অফিস।

বৃষ্টির ফলে তাপমাত্রা কমতে পারে রাজ্যে। আজ থেকে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা তিন ডিগ্রি পর্যন্ত নামতে পারে বলে অনুমান আবহাওয়াবিদদের।

পড়ুন দ্য ওয়ালের সাহিত্য পত্রিকা সুখপাঠ

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.